পৃথিবীর সবচেয়ে রহস্যময় বনগুলি

Spread the love

aokigahasa forest

১.aokigahasa forest:-

জাপানের মাওফুজিতে অবস্থিত এই জঙ্গলে জাপানের সরকার দ্বারা কিছু নোটিশবোর্ড লাগানো আছে।এই নোটিশ বোর্ডে লেখা আছে আপনার এবং আপনার পরিবারের কথা ভাবুন যারা আপনাকে জন্ম দিয়েছে এই নোটিশটি দেওয়া হয়েছে কারণ এই জঙ্গলে অনেক মানুষ আত্মহত্যা করেন। এই জঙ্গল টিকে সুসাইড জঙ্গল বলে অনেকেই।৩৫ কিমি এই জঙ্গল টি তে হারিয়ে যাওয়া হল সাধারণ একটি বিষয়। এই জঙ্গল টি অত্যন্ত ঘন একটি জঙ্গল।

devil tramping ground

২.devil tramping ground :-

আমেরিকার উত্তর ক্যারোলিনায় এই জঙ্গল টি অবস্থিত। এই জায়গাটিকে পৃথিবীর অদ্ভুত জায়গা বলা হয়। জঙ্গলের মধ্যে একটি গোলাকার জায়গা রয়েছে এখান থেকে রাতের বেলায় শয়তান বের হয়ে আসে আসলে এটি বলার কারণ জঙ্গলের এই জায়গাটিতে কোন গাছপালা জন্মায় না। এবং দিনের বেলা এই জায়গাটিতে কোন কিছু রাখলে পরের দিন তা খুঁজে পাওয়া যায় না। রাতের বেলা এই জঙ্গলে কুকুরের ঘেউ ঘেউ করে কিন্তু কুকুরের গোলাকার জায়গাটিতে যায় না।রাতে কোন মানুষ এই জায়গাটিতে থাকতে পারে না এমনকি কুকুররা ওই জায়গাতে যেতে ভয় পায় কিন্তু এখনো পর্যন্ত এর কোন সঠিক তথ্য পাওয়া যায়নি।

nidhivan

৩.nidhivan:-

এই পবিত্র জায়গায় নিধিভান এলাকায় এই গাছটিতে ভগবান শ্রীকৃষ্ণ কে দেখা যায়। অনেক মানুষ তাই মনে করেন নিধিভান এর জঙ্গলে বাকি গাছগুলো উপরের দিকে বাড়ে কিন্তু নিবিভানে এই গাছটি নিচের দিকে বাড়তে থাকে। দিনের বেলায় এখানে ভক্তদের ভিড় থাকে কিন্তু রাতে সেখানে কেউ যায় না। শুধু মানুষ কেন কোন জীবজন্তু এখানে থাকেনা। সেখানকার মানুষরা মনে করেন শ্রীকৃষ্ণের রাসলীলা সেখানে হয়। রাতে যদি এই জঙ্গলে কেউ আসে তবে তার মৃত্যু ঘটে তাই রাতে কেউই এই জঙ্গলে আসে না।

down hill forest

৪.down hill forest:-

পশ্চিমবঙ্গের শহরের একটি রহস্যময় জঙ্গল দার্জিলিং থেকে ৩০ কিলোমিটার দূরে সাদা ফুলের এই জায়গা অনেক সুন্দর। কিন্তু যখন রাত হয়ে যায় সেই জঙ্গলে আশেপাশের মানুষ কিন্তু অদ্ভূত অনুভব করে। স্থানীয় লোকেরা মনে করেন দিনের বেলা প্রকৃতির সৌন্দর্যের জন্যই জঙ্গল টি অনেক সুন্দর থাকে। কিন্তু রাতে এই জঙ্গলে জঙ্গলে ভূত-পেতের ঘুরে বেড়ায়। অনেকে বলেন ডাউন হিল এই জঙ্গলে অনেক আত্মহত্যা করেছেন। এইজন্যই জঙ্গলে মানুষের কঙ্কাল থাকাটা স্বাভাবিক এই জঙ্গলের পাশে রয়েছে ভিক্টোরিয়া বয়েজ স্কুল। যেটিকে পৃথিবীর ভয়ানক একটি জায়গা বলে মনে করা হয়।

hola bacto forest
৫.hola bacto forest:-

এই জঙ্গল দিকে রোমানের ট্রাইংগেল বলা হয়। এই জায়গার গাছগুলো দেখতে অনেক অদ্ভুত এবং আঁকাবাঁকা। এই জায়গাটি অত্যন্ত ভয়ানক কোন মানুষ এই জায়গাতে গেলে তার মৃত্যু অনিবার্য। এমনকি মৃত্যু ব্যক্তির লাশ খুঁজে পাওয়া যায় না। এই জঙ্গলে গাছগুলো দেখতে আঁকাবাঁকা ও খুব ভয়ানক। কিন্তু এই জঙ্গলে কেউ ঢুকলে সে আর ফিরে আসে না। আর এই কারণে কেউ এই জঙ্গলে পা রাখে না।

 


Spread the love

Add a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *